রমেক এমার্জেন্সি বিভাগে শিক্ষার্থী মারধরের শিকার

74

রংপুর : রংপুর মেডিকেল কলেজ (রমেক) হাসপাতালের এমার্জেন্সি বিভাগে স্টাফদের অতিরিক্ত ফি চাওয়ার প্রতিবাদ করায় বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের (বেরোবি) সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের নবম ব্যাচের শিক্ষার্থী রেজওয়ানুল করিম রিয়াদ বেধরক মারধরের শিকার হয়েছেন।

শুক্রবার (১১ জুন) সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ইমাজেন্সি ইউনিটের সামনে এ অনাকাক্ষিত ঘটনাটি ঘটেছে।

রমেক এমার্জেন্সি বিভাগে শিক্ষার্থী মারধরের শিকার

মারধরের শিকার রেজওয়ানুল করিম রিয়াদ অভিযোগ করে জানান,”আমি আমার ভাই সহ অসুস্থ মায়ের ডায়ালাইসিসের জন্য মাকে ভর্তি করার প্রয়োজনে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের এমার্জেন্সি ওয়ার্ডে নিয়ে আসি৷ এসময় ওয়ার্ডের দায়িত্বশীল স্টাফরা ৩০ টাকার পরিবর্তে অতিরিক্ত টাকা দাবি করে। অতিরিক্ত টাকার মেমো চাইলে তারা মেমো দিতে অস্বীকৃতি জানায়। কেন অতিরিক্ত টাকা চাওয়া হচ্ছে এর প্রতিবাদ করার সাথে সাথেই প্রায় ১৫/১৬ জন মিলে আমাকে ও আমার ছোট ভাই রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী রাশেদ করিমকে বেধরক মারপিট করে।”

তিনি আরও জানান, তার ছোট ভাই ছবি তোলার চেষ্টা করলে তাকে মারধর করে। স্টাফরা এসময় তাদের মোবাইল নিয়ে রেখে দিলেও কিছুক্ষণ পরে তা ফেরত দেয়।সেই সাথে বারাবারি না করার হুমকি দেয়।

এঘটনার সুষ্ঠু বিচার দাবি করেছে মারধরের শিকার বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই শিক্ষার্থী ভাই।

এঘটনায় মেডিকেলে দায়িত্বরত পুলিশ কর্মকর্তা এস.আই আপেল বলেন,”বিষয়টি আমি থানার বড় অফিসারকে জানিয়েছি। তারা এসে বিষয়টি দেখবেন। এছাড়া শিক্ষার্থী রিয়াদ এবং তার মায়ের চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে।”

আরসিএন ২৪ বিডি.কম / ১২ জুন ২০২১
এ এফ

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here