স্টাফ রিপোর্টার
স্ত্রীর মৃত্যুর শোক সহ্য করতে না পেরে আত্মহত্যা করলো বাবু মিয়া (১৮)। বুধবার (৫ মে) সকালে রংপুর বিভাগের পীরগাছা উপজেলার কান্দি ইউনিয়নের দোয়ানী মনিরাম গ্রাম থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়।
(১৮)। বুধবার (৫ মে) সকালে পীরগাছা উপজেলার কান্দি ইউনিয়নের দোয়ানী মনিরাম গ্রাম থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। স্ত্রীর মৃত্যুর ১৫ দিন পরেই তার মৃত্যুর শোক সামলাতে না পেরে আত্মহত্যার পথ বেঁচে নিলো স্বামী বাবু মিয়া।

স্থানীয় দের মাধ্যমে জানা যায়,বছর খানেক আগে গাইবান্ধার সাদুল্যাপুরে পশ্চিম খামার দশলিয়া গ্রামের মৃত সমুর আলীর মেয়ে সুমি আক্তারকে বিয়ে করেন বাবু। বিয়ের পর থেকে শুড়বাড়িতেই বউ নিয়ে থাকতেন তিনি । অন্যের বাড়িতে বিভিন্ন কাজকর্ম করে সংসার চলতো তাদের । গত ২০এপ্রিল (সোমবার ) দুপুরে সুমি আক্তার বাড়ির পাশে একটি মাঠে গরুকে খাওয়ানোর জন্য ঘাস কাটতে যায়। এসময় ঝুলন্ত তারে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলে মারা যায় সুমি আক্তার।

পরে তিনি পীরগাছায় বাবার বাড়িতে ফিরে আসেন। তবে স্ত্রীর মৃত্যুর শোকে তিনি স্বাভাবিক ছিলেন না। বিয়ের এক বছরের মাথায় স্ত্রীর মৃত্যু কোনভাবেই মেনে নিতে পারছিলেন না। শোকে অবস্থায় মঙ্গলবার (৪ মে) রাত ১১টার দিকে বাড়িতে সবার অজান্তে বিষপান করলে রাত ১২টার দিকে তার মৃত্যু হয়। এলাকাবাসীর স্ত্রীর মৃত্যুশোকসামলাতে না পেরে বাবু মিয়া আত্মহত্যা করেছেন।

এ ঘটনার পরিপেক্ষহীতে পীরগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজিজুল ইসলাম জানান , এখন পর্যন্ত অভিযোগ না থাকায় মরদেহের সুরতহাল প্রতিবেদন করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। তবে এ ঘটনায় একটি ইউডি মামলা করা হয়েছে।

আরসিএন ২৪বিডি. কম
৫ মে ২০২১