বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে জাতীয় শোক দিবস পালন

20

স্বাস্থ্যবিধি মেনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৫তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালন করা হয় বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে।

দিবসটি উপলক্ষে শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় কালো ব্যাজ ধারণ এবং জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতকরণ ও কালো পতাকা উত্তোলনের মধ্যদিয়ে শুরু হয় দিবসের মূল কর্মসূচি।

পরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতির সামনে দাঁড়িয়ে ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট বঙ্গবন্ধুসহ সকল শহীদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। দিবসটি উপলক্ষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন বিশ্ববিদ্যারেেয়র উপাচার্য প্রফেসর ডক্টর মেজর নাজমুল আহসান কলিমউল্লাহ, প্রো-ভিসি প্রফেসর ড. সরিফা সালোয়া ডিনা এবং ট্রেজারার প্রফেসর ড. হাসিবুর রশীদ।

এরপর একে একে বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল অনুষদ, বিভাগ, সকল দপ্তর, আবাসিক হল, ইন্সটিটিউট, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতি, অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশন, কর্মচারী ইউনিয়ন, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-কর্মকর্তাদের বিভিন্ন সংগঠন, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ বেরোবি শাখার নেতৃবৃন্দের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করা হয়।

পরে দিবসটি উপলক্ষে বেলা ১২টায় ভার্চুয়াল আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। এছাড়াও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বিশ^বিদ্যালয়ের কেন্দ্রিয় মসজিদে বাদ যোহর বঙ্গবন্ধুসহ ১৫ই আগস্টের শহীদদের আত্মার শান্তি কামনা করে মিলাদ মাহফিল ও দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।

এছাড়া বেগম রোকেয়া ইউনিভার্সিটি ডিবেট ফোরাম (বিআরইউডিএফ) জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর প্রতি উষ্ণ ভালবাসা নিবেদনের জন্য চিঠি লেখা প্রতিযোগিতা “বঙ্গবন্ধু সমীপে” আয়োজন করতে যাচ্ছে।

স্কুল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় এই তিন ক্যাটাগরিতে শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করতে পারবে এই আয়োজনে। এই
আয়োজনকে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয় ও তার বাইরের বিভিন্ন মহল থেকে সাধুবাদ জানানো হয়েছে।


আরসিএন ২৪ বিডি ডট কম / ১৫ আগস্ট ২০২০