লালমনিরহাটে ৪র্থ শ্রেণির এক ছাত্রী ধর্ষণ অতঃপর ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা

- Advertisement -
- Advertisement -

লালমনিরহাট জেলার পাটগ্রাম উপজেলায় ৪র্থ শ্রেণির এক ছাত্রী ধর্ষণের শিকার হয়ে ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে ।

রবিবার (২৬ জুলাই) রাতে ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে স্থানীয় থানায় ওই উপজেলার বুড়িমারী ইউনিয়নের ডাঙ্গাপাড়া এলাকার তহিদুল ইসলামের পুত্র ওয়াজেদ আলীকে (৩২) অভিযুক্ত করে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

মেয়ের বড়বোন বলেন, কয়েকদিন হলো বাবার বাড়িতে এসেছি। গত পরশুদিন দুপুরে গোসল করতে আমার ছোটবোনকে দেখে সন্দেহ হয়। এরপর তাকে জিজ্ঞেস করলে সে আমাদের পাশ্ববর্তী ওয়াজেদের কথা বলেছে। সে নাকি তাকে বিয়ে করবে এই প্রলোভন দিয়ে অবৈধ মেলামেশা করেছে। আমার ছোটবোনের পেটে বাচ্চা আছে সে এ বিষয়ে কিছুই বোঝেনা। শুধু বললো আমাকে বলতে নিষেধ করেছে। বললে নাকি মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছে। আমি বিষয়টি আমার মা – বাবা ও স্বামীকে তাৎক্ষণিক জানাই। আমার অবুঝ বোনের যে সর্বনাশ করেছে তাঁর কঠিন বিচার চাই।

পাটগ্রাম থানার ওসি সুমন কুমার মোহন্ত জানান, ওই ছাত্রীর বাবার অভিযোগ, অভিযুক্ত ওয়াজেদ আলী বেশ কিছুদিন ধরে তার মেয়েকে ধর্ষণ করেন। ঘটনাটি বাহিরে কাউকে জানালে তার মেয়েকে হত্যার হুমকি দেয়। তারা বিষয়টি বুঝতে পেয়ে স্থানীয় একটি ডায়াগনষ্টিক সেন্টারে ওই ছাত্রীর পরীক্ষা করেন। এতে তার ২৮ সপ্তাহের অন্তঃসত্ত্বার ফলাফল আসে।

এ ঘটনায় ওই মেয়ের বাবা বাদী হয়ে পাটগ্রাম থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। অভিযুক্ত ওয়াজেদ আলীকে গ্রেফতার করার পুলিশ চেষ্টা করছেন এবং মেয়েটিকে সরকারিভাবে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য ইতিমধ্যে হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।


আরসিএন ২৪বিডিডটকম/ ২৭ জুলাই ২০২০
আপডেট সময় : ৫:১৯ পিএম / জিএম এম

- Advertisement -
Latest news
- Advertisement -
Related news
- Advertisement -
লাউয়ের যত গুন্ তাজহাট জমিদার বাড়ি health News Rangpur Crime News